ডিগ্রি ২য় বর্ষ(২০১৯-২০) নিয়মিত ও প্রাইভেট শিক্ষার্থীদের পরীক্ষার ফরম পূরণ চলবে ৭/০২/২০২৩ থেকে ৭/০৩/২০২৩ পর্যন্ত। *পরীক্ষা হবে কেন্দ্র খালি থাকলে এপ্রিলের শুরুতে বা ঈদের পরপরই। কলেজসমূহে ফরম পূরণ ফি ১৫০০ এর মধ্যে।

সুফি দর্শনের একত্ববাদ বা আলাহ তত্ত্ব সংক্ষেপে আলোচনা কর।

অথবা, সুফি দর্শনের একত্ববাদ বা আল্লাহ তত্ত্ব সংক্ষেপে আলোচনা কর।
অথবা, সুফি দর্শনের আলোকে একত্ববাদ সংক্ষেপে আলোচনা কর।
অথবা, সুফি একত্ববাদী দর্শনতত্ত্ব সংক্ষেপে বর্ণনা কর।
উত্তর।। ভূমিকা :
সুফিতত্ত্ব বা সুফি দর্শনের মূল সর্বোত্তমভাবে নিহিত আছে আল্লাহ তত্ত্ব বা আল্লাহর একত্বের বিশ্বাসে। সুফির ধ্যান, জ্ঞান, কর্ম সাধনা সবই আল্লাহর নামে সমর্পিত বা উৎসর্গকৃত পরম একক সত্তা আল্লাহর সান্নিধ্য লাভই সুফির একমাত্র চাওয়া।
আল্লাহ তত্ত্ব বা আল্লাহর একত্ববাদ : সাধারণভাবে দার্শনিক দৃষ্টিকোণ থেকে একত্ববাদ বলতে আমরা সেই মতবাদকে বুঝি যে মতবাদ অনুসারে বিশ্বের আদি বা পরম সত্তা এক ও অদ্বিতীয়। বিশ্বের যাবতীয় কিছু এ মূল বা পরম আসি সত্তা থেকেই উৎপত্তি লাভ করেছে। এ বৈচিত্র্যপূর্ণ জগৎ ঐ আদি পরম সত্তার অবভাসিক রূপ। সুফিবাদ এ একত্ববাদ তথা আল্লাহর একত্ব পূর্ণাঙ্গভাবে আস্থা বা বিশ্বাস স্থাপন করে। সুফিবাদের মূল নির্যাস নিহিত রয়েছে আল্লাহর বা পরমসত্তার একত্বের মন্ত্রে। সুফিদের মতে, এ নির্যাস কোন অনৈসলামিক ব্যাপার নয় বরং তা উদ্ভূত আল্লাহর আল হক্ (সত্য সত্তা) থেকে। তাই সুফিদের মূলমন্ত্র হলো ‘লা-ইলাহা-ইল্লাল্লাহ’ অর্থাৎ আল্লাহ ছাড়া কোন মাবুদ নেই।
‘তিনি এক ও অদ্বিতীয়। আল্লাহই যে একমাত্র পরম সত্তা এবং তাঁর সমকক্ষ আর কেউ নেই একথা প্রত্যেক মুসলমান মাত্রই মনেপ্রাণে বিশ্বাস করেন। কিন্তু সুফিরা একে শুধু বিশ্বাসের পর্যায়েই সীমিত রাখেন না, নিয়ে যান চূড়ান্ত পরিণতির দিকে। তাঁদের মতে, শূন্যতা ও নাস্তিকত্বের বিপরীতে যে পরম বাস্তব অস্তিত্ব তাই যথার্থ সত্তা, তাই পরম আরাধ্য মহান আল্লাহ। সুফিদের আল্লাহর একত্বের মূল উৎস কুরআন ও হাদিস থেকেই উৎসারিত। সুফিদের মতানুসারে যেহেতু একমাত্র আল্লাহই পরম সত্তা সেহেতু শেষ বিশ্লেষণে এবং সত্যিকার অর্থে শুধু তিনিই আছেন। আর এ যুক্তির উপর সুফিদের সত্তার একত্ব বিষয়ক ধারণা প্রতিষ্ঠিত। তবে এ একত্বের অর্থ অবশ্যই এ নয় যে, আল্লাহ’ চলমান জগতের বস্তু ও ঘটনাবলির একটি নিছক সমষ্টি মাত্র। এমন কথা বলার অর্থই হবে সর্বেশ্বরবাদ, কিন্তু সুফিদের একত্বতত্ত্ব তা নির্দেশ করে না। তাঁদের মতে, আল্লাহ কোন বস্তুসমষ্টি বা যৌগিক একত্ব নন বরং সে পরম একক সত্তা যিনি স্বরূপতই অখণ্ড ও অবিভাজ্য, বাস্তব বা অভিজ্ঞতা জগতের সব স্বতন্ত্র বস্তু ও ঘটনা তাঁর আঙ্গিক অংশ নয়, বরং তাঁর পরম একক সত্তার অবভাসিক প্রকাশ মাত্র। তাই তাঁদের বিচারে চূড়ান্ত অর্থে আল্লাহ ব্যতীত আর কিছুই প্রকৃতপক্ষে অস্তিত্বশীল নয়। এ অতীন্দ্রিয় পরম একক সত্তা আল্লাহকে সহজ ইন্দ্রিয় কিংবা খণ্ডবুদ্ধির দ্বারা প্রত্যক্ষ করা বা জানা অসম্ভব। তাঁকে জানতে এবং তাঁর প্রত্যক্ষ সাক্ষাৎ লাভ করতে হলে চাই প্রগাঢ় ধ্যান, চাই অকৃত্রিম প্রেম ও ভক্তি মিশ্রিত অন্তর্দৃষ্টি। আর তাই সুফি তাঁর মনকে নির্দিষ্ট করেন প্রগাঢ় ধ্যানে শুধু পরম একক সত্তা আল্লাহর সাক্ষাৎ লাভের আশায়
উপসংহার : অতএব আল্লাহ তত্ত্বই হচ্ছে সুফিবাদের পরম ও মূলতত্ত্ব। এ পরম একক বা অদ্বিতীয় সত্তার সান্নিধ্য লাভই সুফির সামগ্রিক সাধনার মূল লক্ষ্য সুফিকুল শিরোমণি আল গাজ্জালী তাই মন্তব্য করেছেন আল্লাহ সম্পর্কে জ্ঞান অর্জনই হচ্ছে মানবজীবনের সর্বোচ্চ লক্ষ্য।

পরবর্তী পরীক্ষার রকেট স্পেশাল সাজেশন পেতে হোয়াটস্যাপ করুন: 01979786079

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!